চিকিৎসা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধের ঘোষনায় উদ্বেগ

প্রকাশ:| বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারি , ২০১৬ সময় ১১:০৫ অপরাহ্ণ

বেসরকারি ক্লিনিক ও চেম্বারে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধের ঘোষনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে ক্রেতা-ভোক্তাদের স্বার্থ সংরক্ষণকারী প্রতিষ্ঠান কনজুমারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ক্যাব)।

বৃহস্পতিবার বিকেলে গণমাধ্যমে পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ উদ্বেগের কথা জানানো হয়।

বিবৃতিতে বলা হয়, দাবি আদায়ে কোন প্রকার ঘোষণা ছাড়াই বেসরকারি ক্লিনিক, ডায়গনিষ্ঠিক সেন্টার ও বিশেষজ্ঞ চেম্বারে রোগী দেখা এবং প্যাথলজিক্যাল কার্যক্রম বন্ধ করে দেওয়া অমানবিক ও অনৈতিক।

এতে বলা হয়, রোগী প্রতারিত হলে ও ক্ষতিগ্রস্থ হলে তার প্রতিকার এবং ক্ষতিপুরণ পাওয়া তার মৌলিক অধিকার।সেখানে একজন নাগরিকের সে অধিকার খর্ব করার হীনপ্রয়াস শুধুমাত্র নিন্দনীয় নয়, চরম বর্বরতার সামিল।

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, অভিযুক্ত চিকিৎসকরা যদি আদালতের বিচারে দোষী হন তাহলে তার সাজা ও শাস্তি হবে। এখানে চেম্বার ও ক্লিনিক বন্ধে সব চিকিৎসকের একযোগে অঘোষিত ধর্মঘট ডাকার ফলে চিকিৎসকদের মহান পেশাকে প্রশ্নবিদ্ধ করেছে। এর মাধ্যমে চিকিৎসকরা আইনের উর্ধ্বে কিনা তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। এ ধরনের আত্মঘাতী কর্মসুচি থেকে যেন তারা সরে আসে।

পৃথক আরেক বিবৃতিতে ক্যাব নেতৃবৃন্দ তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে চট্টগ্রাম কোর্ট বিল্ডিং এ গাড়ি পার্কি নিয়ে আইনজীবীর সঙ্গে আনসারের ঘটনায় জেলা প্রশাসকের বদলি দাবির ঘটনাকে অনাকাঙ্খিত বলে দাবি করেন।

বিবৃতিতে স্বাক্ষর করেন, ক্যাব কেন্দ্রিয় নির্বাহী কমিটির ভাইস প্রেসিডেন্ট এস এম নাজের হোসাইন, চট্টগ্রাম বিভাগীয় সাধারণ সম্পাদক কাজী ইকবাল বাহার ছাবেরী, নগর সভাপতি জেসসিন সুলতানা পারু, সাধারণ সম্পাদক অজয় মিত্র শংকু।