চবিতে রবি’র ক্যারিয়ার কার্নিভাল

প্রকাশ:| শনিবার, ১২ সেপ্টেম্বর , ২০১৫ সময় ০৮:৫২ অপরাহ্ণ

রবি’র ক্যারিয়ারচট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) ক্যাম্পাসে দিনব্যাপী ‘রবি ক্যারিয়ার কার্নিভাল’র আয়োজন করেছে দেশের অন্যতম শীর্ষ মোবাইল ফোন অপারেটর রবি আজিয়াটা লিমিটেড।

শনিবার সকালে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্র্য অধ্যাপক ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী ক্যারিয়ার কার্নিভালের উদ্বোধন করেন।

চবি’র শিক্ষার্থীদের ক্যারিয়ার সম্পর্কে দিক-নির্দেশনা প্রদান এবং রবি ও টেলিযোগাযোগ শিল্পে কাজের সুযোগ ও ধরণ সম্পর্কে জানাতে রবি এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

অনুষ্ঠানে চবি’র শিক্ষার্থীদের সামনে রবি ও রবি’র মূল কোম্পানি মালয়েশিয়ার আজিয়াটা গ্রুপ বারহাদ এবং এর বৈশ্বিক কার্যক্রম সম্পর্কেও গুরুত্বপূর্ণ তথ্য উপস্থাপন করা হয়।

ক্যারিয়ার কার্নিভালের অংশ হিসাবে ‘ক্যারিয়ার অ্যাট সেলস’ ও ‘অলটারনেটিভ ক্যারিয়ার’ নামে দু’টি সেশন অনুষ্ঠিত হয়। প্রথম সেশনে বিপণন পেশায় কাজের সুযোগ ও সম্ভাব্য চ্যালেঞ্জ সম্পর্কে জানানো হয়। দ্বিতীয় সেশনে টেলিযোগাযোগ খাতে শিক্ষার্থীদের কাজের সম্ভাবনা এবং এ কাজের চ্যালেঞ্জ ও প্রাপ্তিগুলো তুলে ধরা হয়।

উৎসবে শিক্ষার্থীদের জন্য একটি কুইজ প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। এছাড়া রবিতে নিয়োগের অংশ হিসাবে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে চবি শিক্ষার্থীদের জন্য নিয়োগ পরীক্ষাও অনুষ্ঠিত হয় ।

রবি’র এক্সিকিউটিভ ভাইস প্রেসিডেন্ট, রেগুলেটরি অ্যাফেয়ার্স এবং কোম্পানি সেক্রেটারি মোহাম্মাদ শাহেদুল আলম, এক্সিকিউটিভ ভাইস প্রেসিডেন্ট, ইস্টার্র্ণ ক্লাস্টার মার্কেট নাজির আহমেদ এবং ভাইস প্রেসিডেন্ট, রিসোর্সিং শারমিন সুলতান অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে রবি’র চিফ কর্পোরেট অ্যান্ড পিপল অফিসার (সিসিপিও) মতিউল ইসলাম নওশাদ বলেন, রবি সব সময়ই তার নিজের প্রতিষ্ঠানে নতুন ধারণা তৈরি ও বৈচিত্র্যময় উদ্ভাবনী মেধাবী তরুণদের কাজের সুযোগ করে দিতে অগ্রণী ভুমিকা পালন করছে। রবি এসব মেধাবী তরুণদের সম্পৃক্ত করতে বিভিন্ন ধরণের প্লাটফর্ম
তৈরি করেছে, যার মধ্যে ক্যারিয়ার কার্নিভাল অন্যতম।

তিনি বলেন, ক্যারিয়ার কার্নিভালের মাধ্যমে আমরা দেশের তরুণ মেধাবীদের সাথে কর্পোরেট ইস্যু নিয়ে সরাসরি যোগাযোগ করার সুযোগ পাই। দেশের শীর্ষস্থানীয় বিশ্ববিদ্যালয়গুলো থেকে মেধাবীদের রবি’তে নিয়োগ প্রদানের পাশাপাশি তাদের সাফল্যম-িত কর্মজীবন গড়ে তুলতে সঠিক দিক-নির্দেশনা প্রদান এবং পরিকল্পনা
তৈরিতে সহায়ক ভূমিকা পালন করতে এ ধরণের পদক্ষেপ গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখবে।

রবি আজিয়াটা লিমিটেড মালয়েশিয়ার আজিয়াটা গ্রুপ বারহাদ ও জাপানের এনটিটি ডকোমো এর একটি সম্মিলিত উদ্যোগ। রাজস্বের ভিত্তিতে রবি বাংলাদেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম মোবাইল ফোন অপারেটর যার গ্রাহক সংখ্যা জুন ২০১৫ পর্যন্ত ২ কোটি ৭৪ লাখ।

দেশজুড়ে ২ হাজার ৪৫০টি’র বেশি ৩ দশমিক ৫জি সাইট এবং ১২ হাজার ৬৭৯ টি ২ দশমিক ৫জি বিটিএস নিয়ে দেশের প্রায় ৯৯ শতাংশ জনসংখ্যা রবি
নেটওয়ার্কের অন্তর্ভুক্ত। রবি বাজারের সবচেয়ে বিস্তৃত আন্তর্জাতিক রোমিং সেবা প্রদান করছে যা ২০০টি দেশে ৬০০টি’র বেশি অপারেটরকে সংযুক্ত করেছে।