চকরিয়ায় পরিচয় মিলেছে অজ্ঞাত লাশের

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ১১ মার্চ , ২০১৪ সময় ০৯:৫২ অপরাহ্ণ

মুহাম্মদ জিয়াউদ্দীন ফারুক,চকরিয়াঃ
চকরিয়ায় উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নের পাহাড়ি অরণ্য ছগিরশাহকাটা এলাকা থেকে শনিবার রাতে হাতবাঁধা অবস্থায় উদ্ধার হওয়া লাশের পরিচয় মিলেছে। চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি জাতীয়, আঞ্চলিক ও স্থানীয় বিভিন্ন গণমাধ্যমে ছবিসহ সংবাদ প্রকাশিত হওয়ার ৩দিন পর গতকাল মঙ্গলবার আত্মীয় স্বজন চকরিয়া থানায় এসে ছবি দেখে লাশ সনাক্ত করেন। সনাক্তকারী ব্যাক্তি হলেন চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলার ৭ নং জিরি ইউনিয়নের কৈয়গ্রাম ২নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা মৃত সোলতান আহমদের পুত্র হাজী নুরল ইসলাম(৫৫)। তিনি একজন হিউম্যান হলার গাড়ী চালক ও আরাকান পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের সদস্য। নিহতের পুত্র টিপু দাবী করেন পারিবারিক জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে চাচা মোঃ জকরিয়া আমার পিতাকে ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসী দিয়ে হত্যা করেছে। মৃত নুরুল ইসলামের ২ ছেলে ও ১ মেয়ে রয়েছে।
উল্লেখ্য, গত শনিবার রাত পৌনে ১টার দিকে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের মালুমঘাট ছগির শাহ কাটা এলাকায় সড়কের পাশে হাত পা বাধাঁ অবস্থায় অজ্ঞাত মৃত ব্যক্তির লাশ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা। পরে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরণ করেন। অজ্ঞাত লাশের কোন আত্মীয় স্বজনের সন্ধান না পাওয়ায় আনজুমানে মফিদুল ইসলামের মাধ্যমে লাশটি বেওয়ারিশ হিসেবে দাফন করা হয়।
চকরিয়া থানার সেকেন্ড অফিসার ওসমান গনি জানান, মৃত ব্যাক্তির আত্মিয় স্বজনেরা ছবি দেখে লাশ সনাক্ত করেছে। জেলা প্রশাসকের অনুমতি পেলে লাশ কবর থেকে তোলে নিয়ে যেতে পারবে।


আরোও সংবাদ