চকরিয়ায় অপারেশন ছাড়া ৩ কন্যার জন্ম

প্রকাশ:| রবিবার, ১৩ সেপ্টেম্বর , ২০১৫ সময় ০৮:৪২ অপরাহ্ণ

তিন সন্তানের জননী
বি,এম হাবিব উল্লাহ. চকরিয়া প্রতিনিধি-
কক্সবাজারের চকরিয়ায় কোন ধরণের অপারেশন ছাড়াই পর পর তিনটি কন্যাা জন্ম দিয়েছে তৈয়বা আক্তার (২৫) নামের এক গৃহবধু। শুক্রবার রাতে উপজেলা সদরের এশিয়ান হাসপাতালের গাইনী চিকিৎসক ফেরদৌসী আক্তার সুমীর তত্তাবধানে এ গৃহবধু তিনটি কন্যা সন্তান জন্ম দেয়। গৃহবধু তৈয়বা উপজেলার পশ্চিম বড় ভেওলা ইউনিয়নের ইলিশিয়া মকবুলাবাদ এলাকার টেকপাড়া গ্রামের আবদুল হান্নানের স্ত্রী। গৃহবধু তৈয়বা আক্তারের ছোট বোন জন্নাতুল মাওয়া বলেন, এক বছর আগে তার বোনের বিয়ে হয়। বিয়ের পর প্রথম সন্তান ভুমিষ্টের সময় ঘনিয়ে আসলে শুক্রবার বিকেলে তার বোনের প্রসব বেদনা উঠে। পরিবারের লোকজন তাকে নিয়ে ভর্তি করে চকরিয়া উপজেলা সদরস্থ এশিয়ান হাসপাতালে। সেখানে চিকিৎসাধীন থাকাবস্থায় তৈয়বা আক্তার রাতে ৩ কন্যা সন্তান জন্ম দেয়।

রবিবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে মুঠোফোনে জন্নাতুল মাওয়া বলেন, বর্তমানে তার বোন ও নতুন অতিথি তিন ভাগ্নি ভাল আছে। তাদেরকে শনিবার দুপুরে হাসপাতাল থেকে বাড়ি নিয়ে আসা হয়েছে। চকরিয়া এশিয়ান হাসপাতালের গাইনী চিকিৎসক ফেরদৌসী আক্তার সুমী বলেন, গৃহবধু তৈয়বাকে হাসপাতালে আনার পর তার তত্তাবধানে নিবিড় তদারকিতে রাখা হয়। হাসপাতালের স্টাফ নার্স হাসনা হেনা’র সহযোগিতায় কোন ধরণের অপারেশন ছাড়াই শুক্রবার রাত ১১টা ২০ মিনিটে একটি, ১১টা ২৫ মিনিটে একটি ও ১১টা ৩০ মিনিটে একটি কন্যা সন্তান জন্ম দেয় তৈয়বা। তিনি বলেন, তিনটি বাচ্চার গড় ওজনে ছিল ভিন্নতা। তারমধ্যে প্রথমটি এক দশমিক ৫ পাউন্ড, দ্বিতীয়টি এক দশমিক দুই পাউন্ড ও ততৃীয়টি এক দশমিক ৯ পাউন্ড।