গ্যাস সিলিন্ডার প্রতারণা করে অর্থ বিত্তের মালিক হয়েছেন এক ব্যবসায়ী

প্রকাশ:| রবিবার, ১৬ মার্চ , ২০১৪ সময় ১০:৪৫ অপরাহ্ণ

রাউজানের নোয়াপাড়ায় গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডার থেকে গ্যাস রেগুলেটার মেশিনের সহায়তায় খালী গ্যাস সিলিন্ডার র্ভতি করে কম ওজনের গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডার বিক্রয় করে ক্রেতাদের সাথে প্রতারণা করে গত কয়েক বৎসরে অর্থ বিত্তের মালিক হয়েছেন এক ব্যবসায়ী

শফিউল আলম, রাউজান ঃরাউজানের নোয়াপাড়া পথের হাটে গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডার থেকে রেগুলেটারের সাহায্যে গ্যাস খালী বোতলে ভতি করে ১২ কেজি গ্যাস থেকে কমিয়ে ১০ কেজি করে গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডার বিক্রয় করে ক্রেতাদের টকিয়ে কম ওজনের গ্যাস বিক্রয় করছে অসাধু ব্যবসায়ীরা । রাউজানের নোয়াপাড়া পথের হাট বাজারের তানহা গ্যাস সিষ্টেম নামে গ্যাস সিলিন্ডার বিক্রয়ের দোকানে গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডার থেকে রেগুলেটারের মাধ্যমে গ্যাস খালী সিলিন্ডারের বোতলে ভতি করে কম ওজনে গ্যাস সিলিন্ডার বিক্রয় করা হচ্ছে । এলাকার লোকজন জানান, তানহা গ্যাস সিষ্টেম নামে গ্যাস সিলিন্ডার বিক্রয়ের দোকানে এলাকার গ্যাস সিলিন্ডারের দোকানের ডিলার সুভাষ আচায্য থেকে গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডার বোতল ক্রয় করেএনে দোকানের মালিক খোকন । গ্যাস ভতি সিলিন্ডার দোকোনে এনে গাস ভর্তি সিলিন্ডার থেকে রেগুলেটারের মাধ্য প্রতিটি গ্যাস ভর্তি বোতল খেকে দুই কেজি ওজনের গ্যাস খালী গ্যাস সিলিন্ডারের বোতলে ভর্তি করে খোকন । প্রতিটি গ্যাস সিলিন্ডাওে ১২ কেজি ওজনের গ্যাস থাকলে ও গ্যাস কমিয়ে প্রতিটি গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডার বোতলে দশ কেজি করে ১২ কেজি গ্যাসের দাম নিয়ে খোকন গ্যাস সিলিন্ডার বিক্রয় করছে ১২ কেজি সমপরিমাণ ওজনের গ্যানের দাম নিয়ে । এলাকার লোকজনের সাথে প্রতারণা করে কম ওজনের গ্যাস ভতি সিলিন্ডার বিক্রয়ের অভিযোগ পেয়ে গতকাল ১৬ মার্চ রবিবার দুপুর বারটার সময় পিটার গ্যাস কোম্পানীর মাকেটিং ম্যানেজার ফিরোজ আহম্মদ রাউজান নোযাপাড়া পুলিশ ফাড়ীর ইনচার্জ টুটন মজুমদারের নেতৃত্বে পুলিশের সহায়তায় তানহা গ্যাস সিষ্টেম নামের দোকানে প্রবেশ করে গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডার থেকে খালী সিলিন্ডারে গ্যাস ভর্তি করার সময়ে হাতে নাতে ধরে ফেলে । এসময়ে দোকানের মধ্যে থেকে দশটি পিটার গ্যাসের সিলিন্ডার ও গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডার থেকে খালী গ্যাস সিলিন্ডারে গ্যাস ভর্তি করার রেগুলেটার মেশিন আটক করে নিয়ে যায় গ্যাস কোম্পানীর কর্মকর্তা ফিরোজ আহম্মদ । পিটার গ্যাস কোম্পানীর মাকেটিং ম্যানেজার ফিরোজ আহম্মদ বলেন, এ ব্যাপারে মামলা করবেন প্রতারক খোকনের বিরুদ্বে । গ্যাস সিলিন্ডার বিক্রয়ের ডিলার সুভাষ আচায্য প্রতিদিন আমার কাছ থেকে গ্যাস সিলিন্ডারের বোতল পাইকারী দামে আনেন বিক্রয়ের জন্য । তার দোকানে গ্যাস সিলিন্ডার বিক্রয় হয় বেশী । খোকন আমার কাছ থেকে গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডারের বোতল এনে গ্যাস ভর্তি বোতল থেকে খালী গ্যাস সিলিন্ডারের বোতলে গ্যাস ভর্তি ১২ কেজি ওজনের গ্যাস কমিয়ে দশ কেজি ওজনের গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডারের বোতল বিক্রয় করে এলাকার লোকজনের সাথে প্রতারণা করছে এই ব্যাপরে আমি অবগত নয় । আজ দেখতে পেয়ে তা টের পেয়েছি । এই ব্যাপারে গ্যাস সিলিন্ডার বিক্রয়ের দোকানের মালিক খোকন বলেন পিটার গ্যাসের সিলিন্ডারের চেয়ে অন্য কোম্পানীর গ্যাসের সিলিন্ডারের বোতলের দাম কম হওয়ায় ঐ গুলো বিক্রয় করায় পিটার গ্যাস কোম্পানীর কর্মকর্তা আমার উপর ক্ষুদ্ধ হয়ে গ্যাস সিলিন্ডার থেকে গ্যাস কমানোর অভিযোগ এনে আমার দোকোনের গ্যাস সিলিন্ডারের বোতল নিয়ে গেছে । এলাকার লোজন জানিয়েছে গ্যাস সিলিন্ডারের দোকানে কম ওজনের গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডার বিক্রয় করে খোকন গত কয়েক বৎসরের মধ্যে আঙ্গুল ফুলে কলাগাছ হয়েছে । গতকাল ১৬ মার্চ দুপুরে খোকনের দোকানে গ্যাস কোম্পানীর কর্মকর্তা স্থানীয় পুলিশের সহায়তায় সিলিন্ডার থেকে গ্যাস চুরি করে কম ওজনের গ্যাস বিক্রয়ের অভিযোগে দোকান থেকে গ্যাস চুরির রেগুলেটার মেশিন ও গ্যাস সিলিন্ডার আটক করে নিয়ে যাওয়ার সময়ে নোয়াপাড়া পথের হাট ্এলাকায় কয়েকটি গ্যাস সিলিন্ডার বিক্রয়ের দোকান ব›দ্ধ করে ব্যবসায়ীর চলে যায় ।