খাগড়াছড়িতে বাল্য বিয়ে রুখে দিলেন ভ্রাম্যমান আদালত

প্রকাশ:| রবিবার, ৩০ জুলাই , ২০১৭ সময় ১০:৪৭ অপরাহ্ণ

শংকর চৌধুরী, খাগড়াছড়ির:
খাগড়াছড়ি দীঘিনালা উপজেলার মেরুং ইউনিয়নের ছোট হাজাছড়া গ্রামের বাসিন্দা মো. আকবরের ৭ম শ্রেণী পড়ুয়া মেয়ে ফুলমতি (ছদ্মনাম) জন্ম ২০০৪ সালে। ফুলমতি রোজ স্কুলে যাওয়া আসার সময় এলাকার বিল্লাহ হোসেন নামে এক বখাটে তাকে রোজ উত্ত্যক্ত করত। বিষয়টি সমাধানের জন্য ফুলমতির বাবা একাধিক বার বিভিন্ন জনপ্রতিনিধিদের কাছে গেলেও তারা কোন সমাধান দিতে না পারায় অনেকটা নিরুপায় হয়ে মেয়েকে বিয়ে দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়। তাই জন্ম নিবন্ধনে মেয়ের বয়স বাড়িয়ে তাকে মামার বাড়িতে নিয়ে গিয়ে বিয়ের আয়োজন করে বাবা মো. আকব।

কিন্তু তা আর সম্ভব হয়নি রোববার ৩০জুলাই ছোট হাজাছড়া গ্রামে ভুয়া জন্ম নিবন্ধন বানিয়ে বিয়ের আয়োজন চলছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে উপজেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এবং সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. মাহফুজুর রহমানের ভ্রাম্যমান আদালত গিয়ে বিয়ে চলাকালিন সময়ে বিয়ে বন্ধ করে দেয়। ভুয়া জন্ম নিবন্ধন দিয়ে মেয়ের বাল্য বিয়ে দেয়ার চেষ্টার অপরাধে পিতাকে আটক করে ভ্রাম্যমান আদালত।

বাল্য বিয়ে দেয়ার দায় স্বীকার করে মেয়েকে আবারো বিদ্যালয়ে পাঠাবে বলে মুছলেকা দেয়ায় মেয়ের বাবা মো. আকবরকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। তবে ফুলমতিকে উত্ত্যক্তকারী বখাটে বিল্লাহকে দ্রুত গ্রেফতার করতে পুলিশকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে বলে জানান, দীঘিনালা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শেখ মো. শহীদুল ইসলাম।