ক্রীতদাসের শাসন জনগণ মানবে না

প্রকাশ:| রবিবার, ২৬ অক্টোবর , ২০১৪ সময় ১০:১৮ অপরাহ্ণ

২০ দলীয় জোট নেতা ও জাগপার সভাপতি শফিউল আলম প্রধান বলেছেন, ক্রীতদাসের শাসন জনগণ মানবে না।’

স্বাধীনতার ঘোষক শহীদ জিয়াকে পাকিস্তানের চর, মুক্তিযুদ্ধের উপ অধিনায়ক একে খন্দকার আর মুক্তিযোদ্ধা নন, এ ধরনের উক্তিকে জনগণ পাগলের প্রলাপ ভাবতে শুরু করেছে। স্বাধীনতা যুদ্ধে যাদের জন্ম হয় নাই, তারাই এখন মুক্তিযুদ্ধের ফেরিওয়ালা, জাতীয় শহীদ মিনারের মালিক।

প্রধান হিন্দুস্থানের পাতানো ফাঁদে ও ইন্ডিয়ান এজেন্টদের সম্পর্কে জনগণকে সতর্ক থাকার আহ্বান জানান তিনি।

রোববার বিকেলে আসাদ গেটে দলীয় কার্যালয়ে জাগপা ছাত্রলীগের বর্ধিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘জাতিকে বিভক্ত করে ওরা আমাদের গোলাম বানাতে চায়, ওরা আমাদের ভোট ও ভাতের অধিকার কেড়ে নিয়েছে। কল-কারখানা ধ্বংস করেছে, সেনাবাহিনীকে পঙ্গু ও বিডিআরকে শেষ করে দিয়েছে। বাঁধের পর বাঁধ দিয়ে আমাদের উর্বর জমি বরবাদ করেছে। মুসলিম, হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিস্টান, মসজিদ, মন্দির, প্যাগোডা, গীর্জা কোনো কিছুই এদের হাতে নিরাপদ নয়। জুলুম তন্ত্রের বিরুদ্ধে গণজাগরণের আলামত এখন স্পষ্ট।’

বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে তিনি আসন্ন গণ-অভ্যুত্থানের প্রস্তুতি নিতে ছাত্র সমাজের প্রতি আহ্বান জানান।

জাগপা ছাত্রলীগ সভাপতি সাইফুল আলমের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক সাব্বির আলম চৌধুরী রাজিবের পরিচালনায় সভায় বক্তব্য দেন জাগপা ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নেতা রাজু আহমেদ, রাকিবুল ইসলাম রুবেল, নাহিদ হাসান, শ্যামল চন্দ্র সরকার, মিনহাজ প্রধান রাব্বী, নাঈম আহমেদ, নগর জাগপা ছাত্রলীগের সভাপতি আব্দুর রহমান ফারুকী, সালাহ উদ্দিন আহমেদ প্রমুখ।


আরোও সংবাদ