‘কৃমি নাশক ‍ওষুধ সেবন করি, কৃমিমুক্ত বাংলাদেশ গড়ি’

প্রকাশ:| বৃহস্পতিবার, ১ অক্টোবর , ২০১৫ সময় ১১:২৫ অপরাহ্ণ

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন এলাকায় জাতীয় কৃমি নিয়ন্ত্রণ সপ্তাহ উদ্বোধন করা হয়েছে।  বৃহস্পতিবার সকালে নগরীর ‍জামালখান ছালেহ জহুর কিন্ডার গার্টেনে এক শিক্ষার্থীর মুখে  একটি কৃমিনাশক ট্যাবলেট খাওয়ানোর মধ্য দিয়ে কর্মসূচির উদ্বোধন করেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের ভারপ্রাপ্ত মেয়র জোবাইরা নার্গিস খান।
চট্টগ্রামে কৃমি নিয়ন্ত্রণ সপ্তাহ উদ্বোধন
‘কৃমি নাশক ‍ওষুধ সেবন করি, কৃমিমুক্ত বাংলাদেশ গড়ি’ স্লোগানে সপ্তাহব্যাপী কর্মসূচীর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন কাউন্সিলর নাজমুল হক ডিউক, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্রধান শিক্ষা কর্মকর্তা মীর্জা মুহম্মদ শহীদুল্লাহ, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের ভারপ্রাপ্ত প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. মোহাম্মদ আলী, কাউন্সিলর হাসান মুরাদ বিপ্লব, কাউন্সিলর আবিদা আজাদ, চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন ডা. আজিজুর রহমান সিদ্দিকী, ডা. তপন কুমার চক্রবর্তী ও ডা. ইমাম হোসেন রানা।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন জামালখান ওয়ার্ডের কাউন্সিলর শৈবাল দাশ সুমন।

কর্পোরেশনের ভারপ্রাপ্ত মেয়র জোবাইরা নার্গিস খান বলেন, সরকারের স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের আওতায় স্বাস্থ্য বিভাগের উদ্যোগে ১ অক্টোবর থেকে ৭ অক্টোবর কৃমি নিয়ন্ত্রণ কার্যক্রমের অধীনে নগরীর প্রাথমিক বিদ্যালয়, রেজিস্টার প্রাথমিক বিদ্যালয়, ফোরকানিয়া মাদ্রাসা, কিন্ডার গার্টেন, মাধ্যমিক স্কুলগুলোতে ৫ থেকে ১০ বছর বয়সী শিশুদের কৃমিনাশক ‍ওষুধ খাওয়ানো হবে।

তিনি বলেন, প্রতি ৬ মাস অন্তর অন্তর কৃমিনাশক ওষুধ খাওয়ানো প্রয়োজন। কারণ কৃমি শিশুর মেধা বিকাশে ক্ষতি করে।

অনুষ্ঠানে শিশুদের ভরা পেটে কৃমির ওষুধ সেবনের পরামর্শ দেন চিকিৎসকরা।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ছালেহ জহুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ আলাউদ্দিন, ছালেহ জহুর কিন্ডার গার্টেনের অধ্যক্ষ আফরোজা ইয়াসমিন, সিটি কর্পোরেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. আবদুর রহিম ও সমাজকল্যাণ কর্মকর্তা আশেক রসুল চৌধুরী টিপু।