কোরআন ছেঁড়ার ঘটনায় আরো একজন আটক

প্রকাশ:| বুধবার, ৩ ফেব্রুয়ারি , ২০১৬ সময় ১০:২২ অপরাহ্ণ

মো. জাকারিয়াসাতকানিয়া ও লোহাগাড়া উপজেলায় কোরআন শরীফ ছেঁড়ার ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে আরও এক শিবির কর্মীকে আটক করেছে পুলিশ।

বুধবার সন্ধ্যায় চট্টগ্রামের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (বিশেষ শাখা) কাজী আব্দুল আওয়াল সাক্ষরিত গণমাধ্যমকে পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বিষয়টি জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়- মঙ্গলবার রাতে চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলার পদুয়া ইউনিয়নের নওঘাটা গ্রাম থেকে মো.জাকারিয়াকে (২০) ‍আটক করে পুলিশ। জাকারিয়া লোহাগাড়ার পদুয়া ইউনিয়নের নওঘাটা গ্রামের শহর মুল্লুকের ছেলে। সে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ঘটনায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে।

বিজ্ঞপ্তিতে আরো বলা হয়,লোহাগাড়া উপজেলায় চুনতি সীরাতুন্নবী মাহফিল এবং বড়হাতিয়া বায়তুশ শরফ মাহফিলে হাজার হাজার মুসল্লির আগমন ঘটে। বেশি মানুষকে বিভ্রান্ত করার টার্গেট নিয়ে চুনতি ও বড়হাতিয়ার সাতটি মসজিদ এবং দু’টি মাজারের বারান্দায় রাখা কোরআন শরীফ ছেঁড়ার পরিকল্পনা নিয়েছিল শিবির। জাকারিয়াকে চুনতি বাজার জামে মসজিদের ‍বারান্দায় রাখা কোরআন শরীফ ছেঁড়ার দায়িত্ব দেয়া হয়েছিল। ১০ জানুয়ারি ভোর ৫টায় সে সীরাতুন্নবি মাহফিল থেকে বের হয়ে কোরআন শরীফ ছিঁড়ে রাখে।

এর আগে পুলিশ কোরআন শরীফ ছেঁড়ার অভিযোগে সাতকানিয়া থেকে শিবিরের চার নেতাকর্মীকে গ্রেপ্তার করেছিল। গ্রেপ্তারের পর দু’জন আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়ে জানিয়েছিল তাদের পরিকল্পনার কথা।


আরোও সংবাদ