কাপ্তাইয়ে সাংগ্রাই উৎসব পালন

প্রকাশ:| বুধবার, ১৫ এপ্রিল , ২০১৫ সময় ০৯:৪৪ অপরাহ্ণ

নজরুল ইসলাম লাভলু, কাপ্তাই:

Captureব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে গতকাল বুধবার কাপ্তাইয়ে পালিত হলো মারমা সম্প্রদায়ের ঐতিহ্যবাহী সাংগ্রাই বা জলকেলি উৎসব। পুরাতন বছরের সবরকম দুঃখ, কষ্ট, গ্লানি ও জরাজীর্ণ ধুয়ে-মুছে ফেলতে প্রতি বছরের ন্যায় এ বছরও সাংগ্রাই উৎসবের আয়োজন করা হয় কাপ্তাই ক্লাবের উদ্যেগে।

এ উপলক্ষে চিৎমরম বৌদ্ধ বিহার চত্তরে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সাংগ্রাই উৎসব উদযাপন কমিটির আহবায়ক ক্যওজমং চৌধুরী। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পার্বত্য চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিষদের চেয়ারম্যান জ্যোতিরিন্দ্র বোধিপ্রিয় লারমা ওরফে সন্তু লারমা। বিশেষ অতিথি ছিলেন বান্দারবান বোমাং রাজার প্রতিনিধি জলাপ্রু চৌধুরী জিমি, ওয়া¹া বিজিবি অধিনায়ক লে.ক. সাব্বীর সারার শাফাদ, কাপ্তাই পাল্পউড বাগান বিভাগীয় কর্মকর্তা আনম আব্দুল ওয়াদুদ, ইউএনও ইসরাত জাহান পান্না। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন জেএসএস নেতা শক্তিপদ চাকমা, ভাইস চেয়ারম্যান সুব্রত বিকাশ তঞ্চঙ্গ্যা, রাঙ্গামাটি আসনের সাংসদের প্রতিনিধি মো: জহির, কাপ্তাই ক্লাবের সভাপতি এসপি মারমা প্রমুখ।

প্রথম পর্বের অনুষ্ঠান শেষে প্রধান অতিথি ফিতা কেটে সাংগ্রাইয়ের মূল আকর্ষণ পানি খেলা বা জলকেলি উৎসবের শুভ উদ্বোধন করেন। এরপর শুরু হয় ঐতিহ্যবাহী পানি খেলা। পানি খেলা মূলত অবিবাহিত তরুন-তরুনীরা একে অপরকে পানি ছিটিয়ে ভিজিয়ে দেয়। এতে বিগত বছরের সকল পাপ ও জরাজীর্ণ ধুয়ে-মুছে যায় বলে তাদের বিশ্বাস। এ অনুষ্ঠানে শৃঙ্খলা বজায় রাখার জন্য উৎসব কমিটি একটি নির্ধারিত স্থানে পানি খেলার ব্যবস্থা করে। কাপ্তাইয়ের চিৎমরম বৌদ্ধ বিহার মাঠ চত্তরে এই উৎসব চলে। একদিকে তরুণী অপর দিকে তরুনরা মুখোমুখি দাঁড়ায়। পানি ছিঁটানোর জন্য ছোট ছোট ডিঙ্গি নৌকায় পানি ভর্তি করে রাখে। এরপর বাঁশি বাজার সাথে সাথে চলে পরষ্পর পরষ্পরকে পানি ছিঁটানো। অনেক সময় পর্যন্ত এ খেলা চলার পর এক দলের খেলা শেষ হলে আরেক দলের খেলা শুরু হয়।