কর্ণফুলীতে মহিলার আত্মহত্যা: যৌতুকের বলি না ভিন্ন কিছু!

নিউজচিটাগাং২৪/ এক্স প্রকাশ:| সোমবার, ১০ সেপ্টেম্বর , ২০১৮ সময় ০৮:৩৫ পূর্বাহ্ণ

জে.জাহেদ : চট্টগ্রাম কর্ণফুলী উপজেলার চরপাথরঘাটা ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডে মরিয়ম জান্নাত (২২) নামে এক গৃহবধূর ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।
বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য সাইফুদ্দীন মানিক।
৯ সেপ্টেম্বর রবিবার রাত ৮টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।
খবর পেয়ে কর্ণফুলী থানার এসআই নুরুল ইসলাম নিহতের লাশ উদ্ধার করে সুরেতহাল রিপোর্ট তৈরি করে লাশ মেডিকেলে পাঠান।
মৃত মহিলা মরিয়ম জান্নাত কর্ণফুলী উপজেলার চরপাথরঘাটা ১নং ওয়ার্ডের শাহ ছমিয় নগর জাগির সওদাগরের বিল্ডিং এ ভাড়া থাকতেন। তার স্থায়ী ঠিকানা কুতুবদিয়া উপজেলার কৈয়ারচর বলে জানা যায়। মৃত মরিয়ম জান্নাত এর স্বামী মাওলানা গিয়াস উদ্দিন। তিনি একটি মাদ্রাসার শিক্ষক। তিনি মাহবুব আলম ও আতা বাহারের মেয়ে।
এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট থানায় এ রির্পোট লেখা পর্যন্ত কোন মামলা দায়ের করা হয়নি।
তবে পুলিশ বিষয়টি গভীর তদন্ত করছে বলে জানা যায়। কেননা একই দিনে দুই তরুণী একই পদ্ধতিতে মৃত্যু অনেকটা রহস্যজনক।
এলাকাবাসী জানায়, চারতলা একটি বাড়ির নিজের ঘরের রুমে থাকা সিলিং ফ্যানের সঙ্গে গলায় কাপড় পেঁচিয়ে ফাঁসিতে আতœহত্যা করে। পরে ঝুলন্ত অবস্থায় মৃতের লাশ উদ্ধার করে স্থানীয় দুই মহিলা পুলিশকে খবর দেয়।
প্রতিবেশীরা জানান, গত এক বছর আগে কুতুবদিয়া উপজেলার গিয়াস উদ্দিনের সাথে মৃত তরুণীকে বিয়ে হয়। প্রায় সময় যৌতুক নিয়ে তাদের মধ্যে ঝগড়া বিবাদ হতো বলে তথ্য দিয়েছেন। স্বামীর যৌতুকের দাবিতে অসহ্য হয়ে এ কান্ড ঘটাতে পারে বলে ধারণা করছে স্থানীয়রা।

কর্ণফুলী থানার ওসি তদন্ত মোঃ ইমাম হাসান বলেন, “চারতলা ভবনের একটি কক্ষে স্বামী নিয়ে থাকতেন মরিয়ম। রাতে পাশের বাসিন্দারা দরজা খুলে ফ্যানের সঙ্গে তার ঝুলন্ত মৃতদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেন। পরে খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে মৃতদেহ উদ্ধার করেছে”।
মরিয়ম আত্মহত্যা করেছে নাকি তাকে হত্যা করা হয়েছে তা তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি।