কক্সবাজার সদর থানা পুলিশের অভিযানে আটক-১৪

নিউজচিটাগাং২৪/ এক্স প্রকাশ:| বুধবার, ৪ এপ্রিল , ২০১৮ সময় ১০:০৭ অপরাহ্ণ

সেলিম উদ্দিন, ঈদগাঁও, কক্সবাজার প্রতিনিধি, কক্সবাজার সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ ফরিদ উদ্দিন খন্দকার এর নেতৃত্বে পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মোঃ কামরুল আজম, পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশনস্ এ্যান্ড কমিউনিটি পুলিশিং) মোঃ মাইন উদ্দিন, পুলিশ পরিদর্শক (ইন্টেলিজেন্স) মোঃ খায়রুজ্জামান, এসআই দেবব্রত রায়, এসআই মোঃ খালেদ, এসআই সনজীত চন্দ্র নাথ, এসআই প্রদীপ চন্দ্র, এএসআই দীন মোহাম্মদ এএসআই মোঃ রাশেদ, এএসআই হারুনুর রশিদ সঙ্গীয় ফোর্স কক্সবাজার সদর মডেল থানা এলাকায় গত মঙলবার রাতে বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে ১৪ জন আসামীকে গ্রেফতার করেছে।
সদর মডেল থানার এসআই দেবব্রত রায় সঙ্গীয় ফোর্সসহ নিয়ে রাত্রীকালীন মোবাইল-০১ ডিউটিরত অবস্থায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কলাতলী কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল রোডস্থ বিকাশ বিল্ডিং ও পল্লী বিদ্যুৎ কেন্দ্রের মাঝে রাস্তার দক্ষিণ পাশে ছাদেক মিয়ার টেকের ভিতরে খালি জায়গাতে ডাকাতির প্রস্তুতি গ্রহনকালে মোঃ মহিউদ্দিন প্রঃ মাইন উদ্দিন (২৩), পিতা মৃত কবির আহাম্মদ, পেশকার পাড়া কক্সবাজার পৌরসভা, আব্দুল আজিজ (৩৫), পিতা আব্দুর রশিদ, খিল্লা, থানা টেকনাফ, আরিফ (১৯), পিতা আবু তৈয়ব, বৈদ্যরঘোনা,কক্সবাজার পৌরসভা, মোঃ রহিম (২৩), পিতা মোঃ আলম, পেশকার পাড়া কক্সবাজার পৌরসভা, ওমর ফারুক প্রঃ কাজল (১৯), পিতা আবু শামা, দঃ বাহারছড়া, কক্সবাজার পৌরসভা, সাইফুল ইসলাম প্রঃ সাইদুল ইসলাম (২৬), পিতা মোজাহের উদ্দিন, বালুখালী, কাস্টমস, পালংখালী উখিয়াকে ১টি এলজি (আগ্নেয়াস্ত্র), ১ রাউন্ড কার্তুজ, ০৫টি ছোরা, ০৮টি মুখোশ, ৩টি লোহার রডসহ গ্রেফতার করেন।
এছাড়াও মোঃ রুবেল (২২), পিতা জব্বার সমিতিপাড়া, রাসেল (২০), পিতা ধলু ফকির, সমিতিপাড়া, ইয়াছিন আরাফাত (২৩), পিতা সিরাজুল ইসলাম, বড় বাজার, জাহাঙ্গীর আলম (৬২), পিতা মৃত বোল শেখ, নুরপাড়া, জয়নাল আবেদীন (৩০), পিতা মৃত বজল করিম, কলাতলী, মোঃ রফিক (২৫), পিতা মফিজুর রহমান, মহাজের পাড়া, শফি আলম (২২), পিতা মৃত আনোয়ারা, আলীর জাহাল, মোঃ ইউনুছ, পিতা আঃ হালিম, মধ্যম বাহারছড়া থেকে বিভিন্ন মামলায় গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত আসামীদের বিরুদ্ধে ডাকাতির প্রস্তুতি ও অস্ত্র আইনে পৃথকভাবে মামলা দায়ের করে বিজ্ঞ আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।
কক্সবাজার সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ ফরিদ উদ্দিন খন্দকার জানান, অব্যাহত অভিযান পরিচালনা করে পরোয়ানাভূক্ত পলাতক আসামীসহ থানা এলাকাল ছিনতাইকারীদের গ্রেফতার পূর্বক আইনের আওতায় এনে এলাকার জনসাধারন ও পর্যটকদের সার্বিক নিরাপত্তার নিশ্চিত করা হবে এবং চুরি, ছিনতাই ও সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে পুলিশি অভিযান অব্যাহত থাকবে।