কক্সবজারে শীর্ষ অবস্থানে রয়েছে কক্সবাাজর কমার্স কলেজ

প্রকাশ:| বুধবার, ১৩ আগস্ট , ২০১৪ সময় ১০:৫৯ অপরাহ্ণ

এইচএসসিতে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৭ হাজার ৮০৮ জন। উত্তীর্ণ হয়েছে ৫ হাজার ৬০১ জন। জিপিএ ৫ পেয়েছে ১২১ জন। পাশের হার ৭০.৮২%। এ দিকে শীর্ষ অবস্থানে রয়েছে কক্সবাাজর কমার্স কলেজএইচএসসিতে পাশের দিক দিয়ে শীর্ষ অবস্থানে রয়েছে কক্সবাাজর কমার্স কলেজ। জিপিএ ৫ প্রাপ্তির দিকে জেলার শীর্ষ ও চট্টগ্রাম বোর্ডের শীর্ষ ২০ কলেজের মধ্য ৯ম স্থানে রয়েছে কক্সবাজার সরকারী কলেজ। তাদের পাশের হার ৯৩.০৩ শতাংশ।
কক্সবজার সরকারি কলেজে বিজ্ঞান, মানবিক ও ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগ মিলিয়ে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৭৩২ জন। তাদের মধ্যে উত্তীর্ণ হয়েছে ৬৮১ জন।মোট জিপিএ-৫ পেয়েছে ১০৬ জন। কক্সবাজার কমার্স কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৮৩ জন। তাদের মধ্যে উত্তীর্ণ হয়েছে ১৭২ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছে ১ জন। ডুলাহাজারা কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৫৬৫ জন। পাশ করেছে ৪৭৫ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৫ জন। মহেশখালী বঙ্গবন্ধু মহিলা কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১২৫ জন। পাশ করেছে ১০৫ জন। পেকুয়া শহীদ জিয়াউর রহমান কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ২৪৪ জন। পাশ করেছে ২০৪ জন। মহেশখালী কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৪৭৪ জন। পাশ করেছে ৩৭৯ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছে ২ জন। রামু কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৪৭৪ জন। পাশ করেছে ৩৭৬ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছে ১ জন। কক্সবাজার সরকারি মহিলা কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৬৮১ জন। পাশ করেছে ৫২৮ জন। উখিয়া বঙ্গমাতা মহিলা কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৩৫৯ জন। পাশ করেছে ২৭৪ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছে ১ জন। কুতুবদিয়া কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৪১১ জন। পাশ করেছে ৩০৫ জন। চকরিয়া মহিলা কলেজ মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৪২০ জন। পাশ করেছে ৩০৪জন। কক্সবাজার হার্ভাড কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৮৪ জন। পাশ করেছে ১৩০ জন। চকরিয়া কমার্স কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৮০ জন। পাশ করেছে ৫৪ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৩ জন। টেকনাফ কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ২০৩ জন। পাশ করেছে ১২৯ জন। কক্সবাজার সিটি কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৭৭১ জন। পাশ করেছে ৪৭৩ জন। ঈদগাঁও ফরিদ আহমদ কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৪৫৯ জন। পাশ করেছে ২৭৭ জন। মহেশখালী হোয়ানক কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৬৪ জন। পাশ করেছে ৩৫ জন। বদরখালী কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৯১ জন। পাশ করেছে ১০৩ জন। চকরিয়া কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৬৫৯ জন। পাশ করেছে ৩৪৭ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছে ২ জন। উখিয়া কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৪২৫ জন। পাশ করেছে ২১৮ জন। চকরিয়া সিটি কলেজে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১০৪ জন। পাশ করেছে ৩২ জন।

এদিকে মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত আলীম পরীক্ষায় আলিমে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ২ হাজার ১৫৬ জন। পাশ করেছে ২ হাজার ৩০ জন। জিপিএ ৫ পেয়েছে ৬৫ জন।আর মাদ্রাসা শিক্ষাবোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত আলিম পরীক্ষায় জেলার শীর্ষে রয়েছে কক্সবাজার ইসলামীয়া মহিলা কামিল (মাস্টার্স) মাদ্রাসা।
কক্সবাজার আদর্শ মহিলা কামিল (মাস্টার্স) মাদ্রাসায় ৮৯ জন শিক্ষার্থীর মধ্যে পাশ করেছে ৮৮ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৬ জন শিক্ষার্থী। কক্সবাজার হাশেমিয়া কামিল মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ১১৬ জন পাশ করেছে ১০৯ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২জন। ঈদগাঁও আলমাছিয়া মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৬৩ জন। পাশ করেছেন ১৪৬ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৩ জন। ইসলামিয়া মহিলা কামিল মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৭৭ জন। এর মধ্যে পাশ করেছেন ১৭৪ জন এবং জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২৩ জন। বাংলাবাজার ছুরতিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট ৫২ পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাশ করেছেন ৫০ জন শিক্ষার্থী। মাছুমিয়া ইসলামিয়া সুন্নিয়া আলিম মাদ্রাসায় ৩৯ জন পরীক্ষার্থীর কৃতকার্য হয়েছে ৩৪ জন।

ভারুয়াখালী দারুল উলুম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ১৭ জন। পাশ করেছেন ১৬ জন। খুরুশকুল তেতৈয়া তাফহিমুল কোরআন মাদ্রাসায় মোট ৩৯ পরীক্ষার্থীর মধ্যে পাশ করেছেন ৩৮ জন। লামা ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৩৫ জন। এতে পাশ করেছেন ৩৪ জন। গর্জনিয়া ফজলুল উলুম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ৩৪ জন। যার মধ্যে সকলেই পাশ করেছেন। গর্জনিয়া ইসলামিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১২ জন যার মধ্যে সকলেই পাশ করেছেন। রাজাপালং মঈনুল উলুম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১০৪ জন। পাশ করেছেন ১০৩ জন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৩ জন শিক্ষার্থী। ফারিরবিল মিনহাজুল কোরআন মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ২৬ পাশ করেছেন ২৫ জন শিক্ষার্থী। রুমখাঁ পালং ইসলামিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৭৪ জন এর মধ্যে পাশ করেছেন ৭৩ জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৪ জন শিক্ষার্থী। চকরিয়া আনোয়ারুল উলুম মাদ্রাসায় ২০৫ জন। পাশ করেছেন ১৯৩ জন জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৫ জন শিক্ষার্থী। বদরখালী এম.এস ফাজিল মাদ্রাসায় মোট ১১১ জন শিক্ষার্থী পাশ করেছেন ৯৬ জন জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৩ জন শিক্ষার্থী। পহরচাঁন্দা ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৬০ এর মধ্যে পাশ করেছেন ৫৬ জন জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৩ জন শিক্ষার্থী। আমজাদিয়া রফিকুল উলুম ফাজিল মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৩৭ জন এর মধ্যে পাশ করেছেন ১২১ জন শিক্ষার্থী। খুটাখালী তমজিয়া ইসলামি ফাজিল মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৭১ জন শিক্ষার্থী এর মধ্যে পাশ করেছেন ৬১ জন জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২ জন শিক্ষার্থী। ডুলাহাজারা মাফিয়া ইসলামিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৫৬ জন এর মধ্যে সকলেই পাশ করেছেন জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১ জন শিক্ষার্থী। ধুরুং ছমদিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৪৫ জন শিক্ষার্থী পাশ করেছেন ৪৩ জন শিক্ষার্থী। বড়ঘোপ ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৬৩ জন এর মধ্যে সকলেই পাশ করেছেন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২ জন শিক্ষার্থী। পুটিবিলা ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৪১ জন এর মধ্যে সকলেই পাশ করেছেন। মাতারবাড়ি মজিদিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৩২ এর মধ্যে পাশ করেছেন ৩১ জন শিক্ষার্থী। কালারমারছড়া মঈনুল ইসলাম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৩ জন এর মধ্যে পাশ করেছেন ১২ জন শিক্ষার্থী। মোহাম্মদিয়া ইসলামিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৩ জন এর মধ্যে সকলেই পাশ করেছেন। শাপলাপুর ইসলামিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ২৪ জন এর মধ্যে পাশ করেছেন ২১ জন শিক্ষার্থী। হ্নীলা মৌলভী জমিরিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৭ জন শিক্ষার্থী এর মধ্যে পাশ করেছেন ১৬ জন শিক্ষার্থী। হ্নীলা শাহ মজিদিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ২৮ জন এর মধ্যে সকলেই পাশ করেছেন। রঙ্গিখালী দারুল উলুম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৪৩ জন এর মধ্যে পাশ করেছেন ৪২ জন শিক্ষার্থী। রাজাখালী ফাজিল মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৫৬ জন এর মধ্যে পাশ করেছেন ৫২ জন শিক্ষার্থী জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৪ জন শিক্ষার্থী। মৌলভী বাজার ফারুকিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ২৯ জন এর মধ্যে সকলেই পাশ করেছেন জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১ জন শিক্ষার্থী। ফাঁসিয়াখালী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৩৬ জন এর মধ্যে পাশ করেছেন ৩০ জন এবং জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১ জন শিক্ষার্থী। মগনামা মাজিরপাড়া শাহ রশিদিয়া আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৩৭ জন এর মধ্যে পাশ করেছেন ৩৪ জন শিক্ষার্থী। উজানটিয়া এসএস আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৭ জন শিক্ষার্থী এর মধ্যে পাশ করেছেন ১৬ জন এবং জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৩ জন শিক্ষার্থী। পেকুয়া আনোয়ারুল আলিম মাদ্রাসায় মোট পরীক্ষার্থী ছিল ৪৫ জন এর মধ্যে পাশ করেছেন ৪০ জন শিক্ষার্থী।