এরশাদের ৯ বছরের শামনামল ছিল স্বর্ণযুগ

নিউজচিটাগাং২৪/ এক্স প্রকাশ:| বৃহস্পতিবার, ২৬ এপ্রিল , ২০১৮ সময় ১১:১৫ অপরাহ্ণ

পকুয়ায় জাতীয় পার্টির দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন হাজী ইলিয়াছ এমপি

চকরিয়া-পেকুয়া আসনের সংসদ সদস্য ও কক্সবাজার জেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি হাজী ইলিয়াছ বলেছেন, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান আলহাজ্ব হুসাইন মুহাম্মদ এরশাদের ৯ বছরের শামনামল ছিল স্বর্ণযুগ। এরশাদের আমলেই বাংলাদেশে ইসলামকে রাষ্ট্র ধর্ম করা হয়েছে। গ্রাম বাংলার প্রান্তরে প্রান্তরে ব্যাপক উন্নয়ন করা হয়েছিল। তিনি আরো বলেন, তিনি সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ার সাড়ে বছরে চকরিয়া-পেকুয়ার উন্নয়নে সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রণালয় ও বিভাগ থেকে কোটি কোটি টাকার বরাদ্দ এনেছেন। পেকুয়ার উন্নয়নে তিনি কোন ধরনের বৈষম্য করেনি। বরং চকরিয়ার চেয়ে পেকুয়ার উন্নয়নে তিনি বেশি আন্তরিক ছিলেন।  ২৬ এপ্রিল সন্ধ্যায় পেকুয়া মডেল জিএমসি ইনষ্টিটিউশন ময়দানে আয়োজিত পেকুয়া উপজেলা জাতীয় পার্টির দ্বি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অথিতির বক্তৃতায় তিনি উপরোক্তগুলো বলেছেন।

সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহবায়ক ও জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান আসমাউল হোসনার সভাপতিত্বে ও জাতীয় পার্টি পেকুয়া উপজেলা শাখার সাবেক সহ সভাপতি এম. দিদারুল করিমের সঞ্চালনায় অনুষ্টিত সম্মেলনে হাজী ইলিয়াছ এমপি পেকুয়ার উন্নয়নের ফিরিস্তি তুলে ধরে তার বক্তব্যে আরো বলেছেন, ‘পেকুয়া উপজেলার মগনামা, উজানটিয়া ও রাজাখালীতে বেড়িবাঁধ নির্মাণে শত কোটি টাকা বরাদ্দ এনেছেন। পেকুয়ার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্টানের নতুন ভবন এনে দিয়েছেন। পেকুয়া জিএমসি ইনষ্টিটিউশনকে জাতীয়করণ করনে ভূমিকা রেখেছেন। পেকুয়ার প্রধান সড়ক পেকুয়া বাজার থেকে মগনামা ঘাট পর্যন্ত ১৭ কোটি টাকার বরাদ্ধ এনে দিয়েছেন। পেকুয়ার মেহেরানামায় টেকসই বেড়িবাঁধের নির্মাণের জন্য বরাদ্দ এনে দিয়েছেন। পেকুয়ার বিভিন্ন এলাকায় খাল খননের মাধ্যমে কৃষকদের চাষাবাদে সুযোগ করে দিয়েছেন। পেকুয়ার সাত ইউনিয়নে গ্রামীন সড়ক ব্যবস্থার উন্নয়নের তিনি কোটি কোটি টাকা সরকার থেকে বরাদ্দ এনে দিয়েছেন। তিনি জাতীয় পার্টির নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে বলেন, তার আমলের উন্নয়নের প্রচার কম। উন্নয়নের প্রচার জনগণের মাঝে গুরুত্বসহকারে তুলে ধরতে হবে। এমপি ইলিয়াছ পেকুয়া উপজেলা জাতীয় পার্টির সাত ইউনিয়নের নেতাকর্মীদেরকে আগামী নির্বাচনের জন্য প্রস্তুতি নেওয়ার জন্য নির্দেশ দেন। কেন্দ্র কমিটি গঠন করে এখন থেকে ভোটার ও জনগণের কাছে গিয়ে উন্নয়নের কথা তুলে ধরতে আহবানও জানিয়েছেন।

সম্মেলনে বিশেষ অথিতির বক্তব্য রাখেন, জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক মনোয়ার আলম চৌধুরী, বিশেষ অথিতিদের মধ্যে আরো বক্ত রাখেন, কক্সবাজার জেলা জাতীয় পার্টির সহ সভাপতি মোশারফ হোসেন দুলাল, জাতীয় যুব সংহতির কক্সবাজার জেলা শাখার সভাপতি শহিদুল ইসলাম মুন্না, জাতীয় পার্টির চকরিয়া উপজেলা শাখার সভাপতি আলহাজ্ব গিয়াস উদ্দিন, পেকুয়া উপজেলা জাতীয় পার্টির সাবেক সভাপতি এসএম মাহবুব ছিদ্দিকী, পেকুয়া উপজেলা জাতীয় পার্টির সাবেক সেক্রেটারী বিডিআর জাহাঙ্গীর আলমসহ পেকুয়া উপজেলা জাতীয় পার্টির বিভিন্ন অংঙ্গ সংগঠনের বিভিন্ন স্থরের নেতৃবৃন্দ বক্তব্য রাখেন।