এটিএন ও ৭১ মিথ্যা, ভিত্তিহীন প্রতিবেদন প্রচার করে অপপ্রচার চালাচ্ছে -হেফাজত

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ১১ ফেব্রুয়ারি , ২০১৪ সময় ১০:১৭ অপরাহ্ণ

হেফাজত ইসলাম বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় মহাসচিব জুনায়েদ বাবুনগরী অভিযোগ করে বলেছেন, ‘হেফাজত ইসলাম বাংলাদেশ ও দেশের কওমী মাদ্রাসাগুলোকে নিয়ে এটিএন নিউজ ও ৭১ টেলিভিশন অপপ্রচারে নেমেছে। এতে করে যে কোনো সময় এই সংবাদকর্মীরা হেফাজতের সংক্ষুব্ধ নেতাকর্মীদের রোষানলে পড়তে পারেন।’

মঙ্গলবার দুপুরে চট্টগ্রাম মেট্টোপলিটন সাংবাদিক ইউনিয়ন মিলনায়তনে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

বাবুনগরী বলেন, ‘সরকারের পাশে একটি গোষ্ঠী ওঁৎ পেতে আছে। হেফাজতের বিরুদ্ধে পরিকল্পিতভাবে মিডিয়াকে ব্যবহার করে মিথ্যা, ভিত্তিহীন প্রতিবেদন প্রচার করে অপপ্রচার চালাচ্ছে কথিত সাম্রাজ্যবাদী গোষ্ঠীটি।’

তিনি বলেন, ‘এতে করে দেশের আলেম ওলামার মধ্যে ফাটল সৃষ্টি হবে। ক্ষুদ্ধ হয়ে উঠবে এদেশের সংখ্যাগরিষ্ঠ মুসলমান আপমর জনসাধারণ ও সংগঠনের নেতাকর্মীরা। পরে কোথাও অপপ্রচারকারী এসব সাংবাদিকদের ওপর চড়াও হলে হেফাজতের বিরুদ্ধে মাঠে নামবে সাংবাদিক সমাজ। আর এই সুযোগে হেফাজতকে আর্ন্তজাতিক মিডিয়ায় জঙ্গি সংগঠন বলে সনাক্ত করবে। আফগানিস্তান, ইরাক, কাস্মীর ও পাকিস্তানের মতো জঙ্গি দেশে রূপান্তর করবে বাংলাদেশকে। বিনষ্ট হবে দেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব।’

৭১ টেলিভিশনের উদ্দেশে বাবুনগরী বলেন, ‘আজকের এই সংবাদ সম্মেলনের পর ৭১ টেলিভিশন সংশোধন না হলে সংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের পরামর্শক্রমে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

সংগঠনের কেন্দ্রীয় মহাসচিব আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী’র পক্ষে কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আজিজুল হক ইসলামাবাদী লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন।

এই সময় সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন হেফাজত ইসলামের কেন্দ্রীয় নায়েবে আমীর ও চট্টগ্রাম মহানগর আমীর হাফেজ মাওলানা তাজুল ইসলাম, দপ্তর সম্পাদক হাফেজ আনোয়ার, নোয়াখালী জেলা সভাপতি হোসাইন আহমদ, সংগঠনের সদস্য মঞ্জুরুল কাদের, আনম আহমদ উল্লাহ, ইকবাল খলিল প্রমুখ।

লিখিত বক্তব্যে মাওলানা আজিজুল হক ইসলামাবাদী বলেন, ‘গত বছর ৫মে ঢাকার শাপলা চত্বরে হেফাজতের মহাসমাবেশে ১৪ দলীয় জোট সরকার তাণ্ডবলীলা চালায়। এটাকে সরকার ঢাকতে চাইলেও জনগনের কাছ থেকে মিডিয়ার কারণে আড়াল করতে পারেনি।’

‘সত্য কখনো ঢাকা থাকে না’ উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘৫মে ঢাকার শাপলা চত্বরে রাতের আঁধারে সরকার হাজার হাজার আলেম ওলামার ওপর হত্যাযজ্ঞ চালিয়েছে, যা আর্ন্তজাতিক মহলেও জানা।’

হেফাজতের কেন্দ্রীয় আমীর আল্লামা শফির নির্দেশের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘সারা দেশে জেলায় জেলায় শানে রেসালত সম্মেলনের আয়োজন করতে বলেছেন আল্লামা শফি। এই নির্দেশ বাস্তবায়নে চট্টগ্রামে আগামী ৩ ও ৪ এপ্রিল শানে রেসালত সম্মেলনের ঘোষণা দেয়া হয় সংবাদ সম্মেলনে।

কর্মসূচি বাস্তবায়নে সরকারের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেছেন হেফাজত মহাসচিব আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী।