ঈদগড়-বাইশারী সড়ক দিয়ে কাঠ পাচারের হিড়িক

প্রকাশ:| রবিবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি , ২০১৭ সময় ১১:৫২ অপরাহ্ণ

সেলিম উদ্দিন, ঈদগাঁও প্রতিনিধি: কক্সবাজারের ঈদগাঁও-ঈদগড়-বাইশারী সড়ক দিয়ে প্রতিদিন লাখ টাকার চিরাই কাঠ পাচার হচ্ছে। স্থানীয় বন বিভাগ দেখেও যেন না দেখার ভান করে রয়েছে। ফলে ধবংস হচ্ছে বনাঞ্চল ।
প্রাপ্ত তথ্যে প্রকাশ,এলাকার কয়েকজন গাছ চোরাকারবারী দীর্ঘদিন ধরে ঈদগড় ও বাইশারীর বনাঞ্চল থেকে বিভিন্ন প্রজাতির গাছ চুরি করে কেটে নিয়ে গিয়ে বাইশারী সমিল থেকে চিরাই করে এনে ঈদগাঁওসহ বিভিন্ন এলাকায় পাচার করছে। আর পাচারে সহযোগীতা করছে বন বিভাগের কতিপয় লোকজন।
এমনকি তারা প্রতিমাসে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে। দিন-রাত চিরাই কাঠ পাচার অব্যাহত থাকায় এলাকাবাসী অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে। এসব বিষয়ে স্থানীয় বনবিভাগকে অবগত করার পরও চিরাই কাঠ পাচার থেমে নেই। দিন দিন পাচার আরো বাড়ছে ।
এভাবে কাঠ পাচার বৃদ্ধি পাওয়ায় এলাকাবাসী স্থানীয় বন বিভাগকে দায়ী করছেন। তারা টাকার লোভে কাঠ পাচার অব্যাহত রেখেছে। ফলে চোরাইকাঠ ব্যবসায়ীরা আরো ব্যাপরোয়া হয়ে উঠছে।
সরেজমিন পরিদর্শনে দেখা যায়, ঈদগড় ধুমছাকাটা এলাকার মামুন,কোদালিয়া কাটার ফরিদুল আলম,পুর্ব রাজঘাটার জসিম উদ্দিন ,পানিস্যাঘোনার আমির সুলতানসহ বাইশারীর বেশ কয়েকজন কাঠ ব্যবসায়ী বর্তমানে বন বিভাগকে ম্যানেজ করে এ ব্যবসা দেদারছে চালিয়ে যাচ্ছে ।
এছাড়া ঊল্লেখিত ব্যবসায়ী গনের দোকানে এবং বাড়ীতে বর্তমানে ব্যাপক চিরাই কাঠ মজুদ রয়েছে। তাদের বসতবাড়ী ও দোকানে সত্বর অভিযান চালিয়ে কাঠ গুলো উদ্ধার করার জন্য এলাকাবাসী বন বিভাগের উর্ধ্বতন কতৃপক্ষের জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করছেন ।