আলীকেও ধরিয়ে দিল জনতা

প্রকাশ:| শুক্রবার, ১৭ জুলাই , ২০১৫ সময় ০২:১৪ অপরাহ্ণ

আলীকেও ধরিয়ে দিল জনতাসিলেটে শিশু সামিউল আলম রাজনকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় এজাহারভুক্ত সর্বশেষ আসামি আলী হায়দার ওরফে আলীকেও আটক করে পুলিশে দিয়েছে জনতা।

জালালাবাদ থানার ওসি আক্তার হোসেন বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে জানান, শুক্রবার বেলা সোয়া ১১টার দিকে স্থানীয় বাসিন্দাদের সহযোগিতায় শেখপাড়া এলাকা থেকে আলীকে আটক করা হয়।

৩৪ বছর বয়সী আলী এ ঘটনায় এর আগে গ্রেপ্তার মুহিত আলম ও কামরুল ইসলামের ভাই।

গত ৮ জুলাই জালালাবাদের কুমারগাঁওয়ের ১৩ বছর বয়সী রাজনকে পিটিয়ে হত্যার পর তার লাশ নিয়ে গাড়িতে করে যাওয়ার সময় এলাকাবাসী মুহিতকে ধরে পুলিশে দিয়েছিল। তার ভাই কামরুল সৌদি আরবে চলে গেলেও সেখানে প্রবাসীদের সহযোগিতায় তাকে ধরা হয়।

এ ঘটনায় দায়ের করা মামলায় স্থানীয় চৌকিদার ময়না মিয়া ওরফে বড় ময়নাকেও (৪৫) আসামি করা হয়। স্থানীয়দের সহযোগিতায় মঙ্গলবার রাতে ময়নাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। আর বুধবার রাতে একইভাবে ধরা পড়েন নির্যাতনের সহযোগী নুর মিয়া (২০), যিনি সেদিন রাজনকে পেটানোর দৃশ্য ভিডিও করে ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দিয়েছিলেন।

২৮ মিনিটের ওই ভিডিও সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে প্রতিবাদের ঝড় ওঠে। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমেও বিষয়টি সংবাদ শিরোনাম হয়।

মুহিতের স্ত্রী লিপি বেগম, শ্যালক ইসমাইল হোসেন আবলুছসহ আরও কয়েকজনকে এ ঘটনায় আটক করেছে পুলিশ।