আউটস্ট্যান্ডিং ইয়াং এন্টারপ্রেনার ২০১৬

প্রকাশ:| সোমবার, ৫ ডিসেম্বর , ২০১৬ সময় ১০:৫৯ অপরাহ্ণ

দেশের প্রথম তরুণ উদ্যোক্তা বাণিজ্যমেলায় পাঁচ তরুণ উদ্যোক্তাকে ‘আউটস্ট্যান্ডিং ইয়াং এন্টারপ্রেনার ২০১৬’ অ্যাওয়ার্ড দিয়েছে জুনিয়র চেম্বার ইন্টারন্যাশনাল (জেসিআই) চিটাগাং কসমোপলিটন।

%e0%a6%86%e0%a6%89%e0%a6%9f%e0%a6%b8%e0%a7%8d%e0%a6%9f%e0%a7%8d%e0%a6%af%e0%a6%be%e0%a6%a8%e0%a7%8d%e0%a6%a1%e0%a6%bf%e0%a6%82-%e0%a6%87%e0%a7%9f%e0%a6%be%e0%a6%82-%e0%a6%8f%e0%a6%a8%e0%a7%8d%e0%a6%9f

%e0%a6%86%e0%a6%89%e0%a6%9f%e0%a6%b8%e0%a7%8d%e0%a6%9f%e0%a7%8d%e0%a6%af%e0%a6%be%e0%a6%a8%e0%a7%8d%e0%a6%a1%e0%a6%bf%e0%a6%82-%e0%a6%87%e0%a7%9f%e0%a6%be%e0%a6%82-%e0%a6%8f%e0%a6%a8%e0%a7%8d%e0%a6%9fসোমবার (০৫ ডিসেম্বর) রাতে নগরীর এমএ আজিজ স্টেডিয়ামের সিজেকেএস অনুশীলন মাঠের মেলামঞ্চে এ অ্যাওয়ার্ড দেওয়া হয়।

অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন আধুনিক বই বিপণিকেন্দ্র বাতিঘরের স্বত্বাধিকারী দীপঙ্কর দাশ, শিল্পোদ্যোক্তা হাসনাত মো. আবু ওবায়দা, শিল্পপতি মাহবুব সোবহান জালাল, বারকোড ক্যাফের স্বত্বাধিকারী মনজুরুল হক ও সাদিয়া’স কিচেনের স্বত্বাধিকারী সাবিনা ইকরাম সিরাজি। তাদের হাতে অ্যাওয়ার্ড তুলে দেন জেসিআই চিটাগাং কসমোপলিটনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি নিয়াজ মোরশেদ এলিট ও সভাপতি জসীম আহমেদ। হাসনাত মো. আবু ওবায়দার পক্ষে ক্রেস্ট নেন নিয়াজ মোরশেদ এলিট।

সমাপনী অনুষ্ঠানে তরুণ উদ্যোক্তা বাণিজ্যমেলার অনলাইন মিডিয়া পার্টনার দেশের শীর্ষস্থানীয় অনলাইন নিউজপোর্টাল বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কমকে শুভেচ্ছা স্মারক উপহার দেন জেসিআই সভাপতি জসীম আহমেদ। স্মারকটি গ্রহণ করেন বাংলানিউজের চট্টগ্রাম ব্যুরো অফিসের সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট আল রাহমান।

দীপঙ্কর দাশ বলেন, যারা কাজ করে তারা পুরস্কারের আশায় করে না। আনন্দের জন্য কাজ করে। আমিও কাজ করি আনন্দের জন্য। পুরস্কার পাওয়াও আনন্দের।

মাহবুব সোবহান জালাল বলেন, জেসিআইর অ্যাওয়ার্ড শুরুর পর্বে আমাকে মনোনিত করার জন্য ধন্যবাদ। খুবই ভালো লাগছে। আশাকরি, আগামী দিনে অন্য তরুণ উদ্যোক্তারা এ অ্যাওয়ার্ড পাবে।

মনজুরুল হক বলেন, স্বীকৃতি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ভালো কিছু করার জন্যই আমি কাজ করি। আমি নিশ্চিত তরুণ উদ্যোক্তাদের এ অ্যাওয়ার্ড উৎসাহিত করবে। চিটাগাং চেম্বারের প্রথম বাণিজ্যমেলা আরও ছোট্ট পরিসরে শুরু হয়েছিল। আগামী দিনে জেসিআই’র মেলা আরও প্রসার লাভ করবে।

সাবিনা ইকরাম সিরাজি বলেন, পুরস্কার পেয়ে অনেক খুশি লাগছে। জীবনে তিনটি বিশেষ অ্যাওয়ার্ড পুরস্কার পেয়েছি। আরেকটি সামনে পাবো, এখন বলছি না।

তিনি বলেন, জীবনে স্বপ্ন দেখতে হয়। শুধু স্বপ্ন দেখলে হবে না, স্বপ্ন বাস্তবায়নের উদ্যোগ নিতে হয়। তবেই সফল হওয়া যায়।

হাসনাত মো. আবু ওবায়দা সম্পর্কে নিয়াজ মোরশেদ এলিট বলেন, হাসনাত জেসিআইর শুরুর দিকে সহসভাপতি ছিল। কর্মব্যস্ততার কারণে নিরবচ্ছিন্ন থাকতে পারেনি। আমার বন্ধু এত বড় পুরস্কার পাচ্ছে, সে জন্য তাকে শুভেচ্ছা জানাই।

অনুষ্ঠানে মনোমুগ্ধকর নৃত্য পরিবেশন করেন হিপ অব ডান্স গ্রুপের সদস্যরা। গ্রুপের ‘ওটু স্ট্রিট’র আকাশ, ইমন, হাসিবের পরিবেশনায় দর্শকরা উচ্ছ্বাসে ফেটে পড়েন। সব শেষে গান করেন জনপ্রিয় শিল্পী মিনার রহমান।