অ্যাসাঞ্জ ইকুয়েডরের আশ্রয়েই থাকবেন: পাতিনো

প্রকাশ:| সোমবার, ১৭ জুন , ২০১৩ সময় ০৬:২৫ অপরাহ্ণ

ইকুয়েডরের পররাষ্ট্রমন্ত্রী রিকার্দো পাতিনো বলেছেন, লন্ডনে ইকুয়েডরের দূতাবাস উইকিলিকসের প্রতিষ্ঠাতা জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জকে রাজনৈতিক আশ্রয় প্রদান অব্যাহত রাখবে।অ্যাসাঞ্জ ইকুয়েডরের আশ্রয়েই থাকবেন: পাতিনোjulian-assange_5366_0

সোমবার বিকেলে এক প্রতিবেদনে বিবিসি অনলাইন জানায়, যুক্তরাজ্যের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে এক বৈঠক শেষে ইকুয়েডরের পররাষ্ট্রমন্ত্রী একথা বলেন।

উইকিলিকসের মাধ্যমে মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরের গোপন নথি ফাঁস করে দেওয়া জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জ গত প্রায় এক বছর ধরে লন্ডনস্থ ইকুয়েডর দূতাবাসে অবস্থান করছেন।

দুই নারীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাকে সুইডেনে ফেরত পাঠানো হতে পারে- এমন আশংকাতেই তিনি সেখানে অবস্থান করছেন।

ইকুয়েডরের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, “জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জের জীবন রক্ষায়, বিশেষ করে তার মত প্রকাশের স্বাধীনতা রক্ষায় ইকুয়েডর সরকার তাকে যে রাজনৈতিক আশ্রয় দিয়ে আসছে তা অব্যাহত রাখা হবে।”

তিনি বলেন, “ইকুয়েডর সরকার মনে করে যে কারণে অ্যাসাঞ্জকে রাজনৈতিক আশ্রয় দেয়া হয়েছিল তা এখনও প্রাসঙ্গিক।”

এর আগে যুক্তরাজ্য সরকার বলেছিল, জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জকে সুইডেনে ফেরত পাঠানোর বিষয়ে যুক্তরাজ্য সরকারের আইনী বাধ্যবাধকতা রয়েছে।

নিজেদের অবস্থান সমর্থনে যুক্তরাজ্য ও ইকুয়েডর উভয় দেশেরই ভিন্ন ভিন্ন আইনী যুক্তি রয়েছে- উল্লেখ করে রিকার্দো পাতিনো জানান, জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জকে লন্ডনস্থ ইকুয়েডরের দূতাবাসে আশ্রয় দেয়ার পক্ষে প্রয়োজীয় কারণ উল্লেখ করে এ সংক্রান্ত কাগজপত্র যুক্তরাজ্য সরকারকে সরবরাহ করা হয়েছে।


আরোও সংবাদ