অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন রমেন, আসিফ, একরামুল, সুমন, কমল

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ২১ মার্চ , ২০১৭ সময় ১০:৫৩ অপরাহ্ণ

একুশে টেলিভিশনের ব্রাইট অ্যান্ড ব্রিলিয়ান্ট ‍জার্নালিস্ট অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন পাঁচজন সাংবাদিক। তারা হলেন বাংলানিউজটোয়েন্টিফোরডটকম’র স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট রমেন দাশগুপ্ত, কালের কণ্ঠের আসিফ সিদ্দিকী, প্রথম আলোর একরামুল হক, সমকালের সারোয়ার সুমন ও সময় টেলিভিশনের কমল দে।

মঙ্গলবার (২১ মার্চ) রাত আটটায় রেডিসন ব্লু চিটাগাং বে ভিউ’র মেজবান হলে ব্রাইট অ্যান্ড ব্রিলিয়ান্ট জার্নালিস্ট অ্যাওয়ার্ড নাইট শীর্ষক অনুষ্ঠানে এসব পুরস্কার দেওয়া হয়। তারা প্রত্যেকে পেয়েছেন এক লাখ টাকার চেক ও সনদ।

রমেন দাশগুপ্ত জন্মান্ধ তিন বোন ছড়াচ্ছে আলো শীর্ষক প্রতিবেদনের জন্য মীর আহমদ সওদার ব্রাইট অ্যান্ড ব্রিলিয়ান্ট জার্নালিস্ট অ্যাওয়ার্ড। তার হাতে পুরস্কার তুলে দেন মীর আহমদ সওদাগর নিজে।

সিন্ডিকেট নির্ধারিত দামে ডিম বিক্রি নিয়ে করা প্রতিবেদনের জন্য আসিফ সিদ্দিকী পেয়েছেন আনোয়ার‍া-আলম ফাউন্ডেশন ব্রাইট অ্যান্ড ব্রিলিয়ান্ট জার্নালিস্ট অ্যাওয়ার্ড। তার হাতে পুরস্কার তুলে দেন চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি মাহবুবুল আলম।

‘ঢাকা চট্টগ্রাম রেলপথে বিনিয়োগ বেড়েছে, গতি কমেছে’ শীর্ষক প্রতিবেদনের জন্য একরামুল হক পেয়েছেন আবুল খায়ের স্মৃতি ব্রাইট অ্যান্ড ব্রিলিয়ান্ট জার্নালিস্ট অ্যাওয়ার্ড। তার হাতে পুরস্কার তুলে দেন আবুল খায়ের গ্রুপের পরিচালক (মার্কেটিং অ্যান্ড ব্রান্ড ) নওশাদ করিম চৌধুরী।

লাইটার জাহাজ নিয়ে করা প্রতিবেদনের জন্য সারোয়ার সুমন পেয়েছেন সামুদা খাতুন স্মৃতি ব্রাইট অ্যান্ড ব্রিলিয়ান্ট জার্নালিস্ট অ্যাওয়ার্ড। তার হাতে পুরস্কার তুলে দেন টিকে গ্রুপের নির্বাহী পরিচালক রফিক আহমদ।

জাতীয় পরিচয়পত্র নিয়ে করা প্রতিবেদনের জন্য কমল দে পেয়েছেন দিলুয়ারা স্মৃতি ব্রাইট অ্যান্ড ব্রিলিয়ান্ট জার্নালিস্ট অ্যাওয়ার্ড। তার হাতে পুরস্কার তুলে দেন কেডিএস গ্রুপের আহমদুল হক।

এ সময় একুশে টেলিভিশনের এডিটর ইন চিফ অ্যান্ড সিইও মনজুরুল আহসান বুলবুল, একুশে টেলিভিশন ও এস আলম গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান আবদুস সামাদ লাবু, ব্রাইট অ্যান্ড ব্রিলিয়ান্ট সাংবাদিক নির্বাচক কমিটির প্রধান একুশে পুরস্কারপ্রাপ্ত সাংবাদিক আবুল মোমেন, কমিটির সদস্য কবি-সাংবাদিক বিশ্বজিৎ চৌধুরী ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক রওশন সোমা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে দীর্ঘ সাংবাদিকতা জীবনের চমকপ্রদ অভিজ্ঞতা তুলে ধরেন কলকাতার সংবাদ প্রতিদিন’র যুগ্ম সম্পাদক গৌতম ভট্টাচার্য।