অস্ত্রের ভয়ে চেয়ারম্যান প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিলের অভিযোগ

প্রকাশ:| রবিবার, ১৫ মে , ২০১৬ সময় ১০:৫০ অপরাহ্ণ

অভিযোগ
চট্টগ্রামের সাতকানিয়া উপজেলা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে মো. রেজাউল করিম চৌধুরী নামে একজন স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থীর মনোনয়ন পত্র জোর পূর্বক অস্ত্রের মুখে বাতিল করতে বাধ্য করা হয়েছে মর্মে অভিযোগ উঠেছে।
দাখিলকৃত সব কাগজ পত্র ঠিক থাকার পরও ঠুনকো বিষয়ে সাতকানিয়ার রির্টানিং অফিসার ও উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা আ,ন, ম ছালেহ উদ্দিন এক নং চরতী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রার্থী রেজাউল করিমের মনোয়ন বাতিল করে।

এ ব্যাপারে জেলা নির্বাচন অফিসারের বরাবরে লিখিত অভিযোগ দেয়ার পর সোমবার এ নিয়ে শুনানী অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

প্রার্থী রেজাউল করিমের পক্ষে দায়ের করা অভিযোগে জানাযায়, উপজেলার চরতী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে রেজাউল করিমের পক্ষে তার মনোনীত ব্যাক্তিগণ (মামলার কারণে তিনি বর্তমানে জেলে আছেন) গত ১০ মে প্রয়োজনীয় কাগজপত্রসহ মনোনয়ন জমাদেন উপজেলা রির্টানিং অফিসারে কাছে। পর দিন বাছাইকালে প্রস্তাবক সমর্থনকারীদের উপস্থিততে সব কিছু ঠিক থাকায় রেজাউল করিমের মনোয়ন বৈধ ভাবে গ্রহণ করেন রির্টানিং অফিসার।

প্রস্তাবকারী কামাল উদ্দিন আহমেদ অভিযোগ করেন, রেজাউল করিমের মনোনয়ন বৈধ করার দুই ঘন্টা পর প্রতিদ্ধন্দ্বি আওয়ামী লীগের চেয়ারম্যান প্রার্থী প্রদীপ কুমার চৌধুরীর পক্ষে তার ছোট ভাই ও দক্ষিণ জেলা যুবলীগ নেতা পার্থ সারর্থীর নেতৃত্বে যুবলীগ ছাত্রলীগের ছেলেরা অস্ত্রের মুখে চাপ সৃষ্টি করে রেজাউল করিমের মনোনয়ন বাতিল করতে রিটানিং অফিসারকে বাধ্য করেন।

তিনি বলেন, রিটারিং অফিসার প্রার্থী দাখিল করা ছবিতে সত্যায়িত করা সরকারী অফিসার ডা. মোহাম্মদ নূরের স্বাক্ষরের নীচে তারিখ নেই, স্বাক্ষর সঠিক নয়, এবং প্রার্থী উপস্থিত ছিলেন না। তিনি জেলে আছেন, প্রস্তাবক সমর্থনকারীগণ উপস্থিত থাকলেও প্রক্রিয়া শেষ না হওয়ার আগেই তারা চলে যান।
এসব ঠুনকো অভিযোগ তুলে রিটানিং অফিসার আমাদের প্রার্থীর মনোয়নয়ন বাতিল করে দেয়। এর বিরুদ্ধে আমরা জেলা নির্বাচন অফিসে আপীল করেছি। আগামীকাল সোমবার এর শুনানী অনুষ্ঠিত হবে।

এদিকে এসব অভিযোগ অস্বিকার করেন, প্রতিদ্বন্ধি প্রার্থী প্রদীপ কুমার চৌধুরী, তিনি বলেন, রেজাউল করিমের প্রার্থীতা বাতিলে আমাদের কোন হাত নেই। রিটারিং অফিসার কাগজপত্রে গড়মিল পেয়েছেন তাই বাতিল করেছেন। আমরা কেন বাধ্য করবো। তাছাড়া জেলা নির্বাচন অফিসে আপীল করেছে সেখানে যা হয় হবে।

এব্যাপারে জানতে চাইলে রির্টানিং অফিসার আ,ন, ম ছালেহ উদ্দিন কোন মন্তব্য করতে রাজী হননি।