অরক্ষিত বেড়িবাঁধ জরুরী ভিত্তিতে নির্মাণ করা সময়ের দাবী

প্রকাশ:| রবিবার, ৩০ এপ্রিল , ২০১৭ সময় ১০:২৮ অপরাহ্ণ

পতেঙ্গা উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদের ভয়াল ২৯ এপ্রিল স্মরণ আলোচনায় বক্তারা

পতেঙ্গা উন্নয়ন সংগ্রাম পরিষদের উদ্যোগে ১৯৯১ সনের ২৯ এপ্রিল এর প্রলয়ঙ্করী ঘুর্ণিঝড় ও জ্বলোচ্ছাসে নিহতদের স্মরণে এক স্মরণ আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল এবং মকবুল আহমদ স্মৃতি সম্মাননা স্মারক গত ২৯ এপ্রিল ২০১৭ খ্রি. বিকাল ৫টায় উত্তর পতেঙ্গা কাটগড়স্থ এম.এ আজিজ উদ্যানে সংগঠনের সভাপতি সাবেক চেয়ারম্যান জাগির আহমদ এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। ৪০নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত হাসানের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বাংলাদেশ মেডিকেল এসোসিয়েশন চট্টগ্রামের সাধারণ সম্পাদক, সাবেক ছাত্রনেতা ডা. ফয়সল ইকবাল চৌধুরী, সহ-সভাপতি চসিক প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সেলিম আক্তার চৌধুরী, শিশু চিকিৎসক ডা. মুহাম্মদ ইমতিয়াজ, বঙ্গবন্ধু জাতীয় চারনেতা স্মৃতি পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মোঃ আবদুর রহিম, ৪০নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হাজী মুহাম্মদ জয়নাল আবেদীন, ১৪নং সংরক্ষিত ওয়ার্ড কাউন্সিলর মিসেস শাহানুর বেগম, রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব শামসুদ্দিন, ওয়াহিদুল আলম, হাজী ওমর ফারুক, হাজী লোকমান কোম্পানী, হুমায়ুন কবির, জাহাঙ্গীর হোসেন শান্ত, নারী নেত্রী মাহবুবা আলোচনা করেন। আলোচনায় বক্তারা বলেন, ২৯ এপ্রিলের ঘুর্ণিঝড়ে চট্টগ্রামের মানুষের যে ভয়ানক এবং বিভীষিকাময় পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে হয়েছে এবং হাজার হাজার মানুষের লাশ ধ্বংসস্তুপে পরিণত হয়েছিল তার স্মৃতি আজও আমাদের হৃদয়কে নাড়া দেয়। ভয়াল ২৯ এপ্রিলের জান-মালের সেই অপূরণীয় ক্ষতি আজও চট্টগ্রামবাসী ভূলতে পারেনি। বক্তারা বলেন, বর্তমান সরকার বহুমুখী উন্নয়ন কর্মকান্ড যেমন বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে ঠিক তেমনি ঘুর্ণিঝড় থেকে রক্ষার জন্য উপকুল রক্ষায় নানামুখী প্রকল্প বাস্তবায়ন করতে হবে। নেতৃবৃন্দ পতেঙ্গার অবহেলিত মানুষের দীর্ঘদিনের দাবী অরক্ষিত বেরিবাঁধ জরুরী ভিত্তিতে নির্মাণ করার দাবী জানান। আলোচকগণ আসন্ন জাতীয় বাজেটে পতেঙ্গা বেড়িবাধ রক্ষা ও উপকুল রক্ষায় পর্যাপ্ত পরিমাণ বাজেট ঘোষণা দেওয়ার জন্য বর্তমান সরকারের প্রতি আহবান জানান। বক্তারা আরো বলেন, সরকারের উন্নয়নের পাশাপাশি বেসরকারিভাবে বেশি বেশি বৃক্ষ রোপন করতে হবে। উপকূল রক্ষায় সরকারের নানামূখি উদ্যোগের পাশাপাশি জনসাধারণকেও আরো সচেতন হতে হবে। সবুজ বেষ্ঠনীর মাধ্যমে আমাদরকে প্রাকৃতিক দুর্যোগের হাত থেকে রক্ষার জন্য সকলের সচেতন হওয়া জরুরী। এ সময় নেতৃবৃন্দরা ২৯ শে এপ্রিল নিহতদের আতœার মাগফেরাত কামনায় বিশেষ দোয়া ও মোনাজাত করেন। সভা শেষে ১৯৯১ সালের ২৯ এপ্রিল এর সময় ক্ষতিগ্রস্থ ব্যক্তিদের চিকিৎসা, বাসস্থান সহ বিভিন্ন বিষয়ে সহযোগিতার জন্য সাবেক মন্ত্রী ডা. আফসারুল আমিন এম.পি, ডা. মুহাম্মদ ফয়সল ইকবাল চৌধুরী, ডা. সেলিম আক্তার চৌধুরী, ডা. মুহাম্মদ ইমতিয়াজ, সাবেক শ্রমিক নেতা মুহাম্মদ আবদুর রহিম, কাউন্সিলর হাজী মুহাম্মদ জয়নাল আবদীন ও মহিলা কাউন্সিলর মিসেস শাহানূর বেগমকে মকবুল আহমদ স্মৃতি সম্মাননা স্মারক প্রদান করা হয়।